‘বাহুবালী’ খ্যাত নায়িকা আনুষ্কা প্রভাসকে নয় ক্রিকেটারকে বিয়ে করছেন

Img

ভারতের দক্ষিণী সিনেমা পাড়ায় গুঞ্জন বিয়ে করছেন ‘বাহুবালী’খ্যাতিমান জুটি আনুষ্কা শেট্টি ও প্রভাস। কিন্তু এই বিষয় সব সময় উড়িয়ে দিয়েছেন এই জুটি। এবার সেই গুঞ্জন আরো চাওড় হয়েছে সম্প্রতি এক খবরে। জানা গেছে দক্ষিণীর এই অভিনেত্রী ক্রিকেটারকে জীবন সঙ্গী করছেন।

ক্রীড়াঙ্গনের কাউকে বিয়ে করা নতুন নয়। এর আগে আনুষ্কা শর্মা, গীতা বসরা, নাতাশা স্ট্যানকোভিকরা ক্রিকেটারদের বিয়ে করেছেন। এবার সেই তালিকায় নাম উঠতে যাচ্ছে আনুষ্কার।
 
পিঙ্কভিলাতে প্রকাশিত রিপোর্ট অনুযায়ী, ক্রিকেটারের সঙ্গে বিয়ের সবরকম প্রস্তুতি চালাচ্ছেন আনুষ্কা। তবে ওই ক্রিকেটার দক্ষিণ ভারতীয় নাকি উত্তরের, তা জানা যায়নি। যদিও এখনও পর্যন্ত অভিনেত্রীর তরফ থেকে কোনও বিবৃতি পাওয়া যায়নি।

বর্তমানে ‘নিশাবধম’নামে একটি ছবির প্রোমোশনে ব্যস্ত রয়েছেন আনুষ্কা। আর মাধবনের সঙ্গে সেই ছবিতে কাজ করেছেন এই অভিনেত্রী। ২ এপ্রিল মুক্তি পাবে সেই ছবি। বোবা মেয়ের ভূমিকায় অভিনয় করছেন আনুষ্কা। তবে ছবির থেকেও অনুষ্কার বিয়ের খবরে বেশি উৎসাহী ভক্তরা। কে সেই ক্রিকেটার? জানতে উৎসুক সবাই।

পূর্ববর্তী সংবাদ

শাজাহান খানের বিরুদ্ধে ইলিয়াস কাঞ্চনের ১০০ কোটি টাকার মামলা

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক নৌ পরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খানের বিরুদ্ধে ১০০ কোটি টাকার মানহানি মামলা করেছেন নিরাপদ সড়ক চাই আন্দোলনের চেয়ারম্যান ও কিংবদন্তি অভিনেতা ইলিয়াস কাঞ্চন। বুধবার (১২ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে প্রতিষ্ঠানটির যুগ্ম মহাসচিব লিটন এরশাদ স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য জানান।  

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, পরিবহন শ্রমিক নেতা শাজাহান খান এমপির বিরুদ্ধে মানহানির অভিযোগ এনে ঢাকার প্রথম যুগ্ম জেলা জজ আদালতে ১০০ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ চেয়ে আজ মামলা করেছেন নিরাপদ সড়ক চাইয়ের (নিসচা) প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন। মামলা নং- ০৯/২০২০, তারিখ: ১২.০২.২০২০।

ইলিয়াস কাঞ্চনের পক্ষে মামলাটি করেন বাংলাদেশ সুপ্রিম কোর্টের অ্যাডভোকেট মো. রেজাউল করিম।

প্রসঙ্গত, গত ৮ ডিসেম্বর ২০১৯ পরিবহন শ্রমিক নেতা শাজাহান খান এমপি নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে এক অনুষ্ঠানে নিরাপদ সড়ক চাইয়ের (নিসচা) প্রতিষ্ঠাতা এবং চেয়ারম্যান চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন এবং নিরাপদ সড়ক চাইসহ তার পরিবারের সদস্যদের নিয়ে নির্লজ্জ মিথ্যাচারের মাধ্যমে অসত্য, বানোয়াট ও উদ্ভট কিছু প্রসঙ্গ টেনে এনে চরিত্র হরণের চেষ্টা চালিয়েছেন।

সেদিন তিনি বলেছিলেন, ‘ইলিয়াস কাঞ্চন কোথা থেকে কত টাকা পান, কি উদ্দেশ্যে পান, সেখান থেকে কত টাকা নিজে নেন, পুত্রের নামে নেন, পুত্রবধূর নামে নেন সেই হিসাবটা আমি জনসম্মুখে তুলে ধরবো’- যা বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে।

শাহজাহান খানের এমন মিথ্যাচারে যেহেতু সেই সময় ইলিয়াস কাঞ্চন দেশের বাইরে অবস্থান করছিলেন তখন নিরাপদ সড়ক চাইয়ের পক্ষ থেকে তাৎক্ষণিক প্রতিবাদ জানিয়ে এ মিথ্যা বক্তব্য প্রত্যাহারের জন্য ২৪ ঘণ্টার আলটিমেটাম দেয়া হয়, যা সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত হয়।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার