৩৬ বছর পর ধর্ষণ মামলার আসামি গ্রেপ্তার

Img

অদ্ভুত এই মামলার খবর প্রকাশ করেছে নিউইয়র্ক টাইমস। প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, ৩৬ বছর আগে মারা যাওয়া জেরোম ওয়েন্ডি নামের মেয়েটির বয়স ছিল ১৪ বছর।

সেদিন সন্ধ্যা সাতটার দিকে সে বাড়ি থেকে বের হয়।

ফেরার কথা ছিল রাত আটটার দিকে।
সময় মতো না ফেরায় ওয়েন্ডির মা-বাবা চিন্তিত হয়ে পড়েন। পরে তারা লাশ খুঁজে পান বাড়ির পাশে মেয়ের স্কুলের পেছনে।

পুলিশ জানিয়েছে এতদিন বাদে তারা ‘পারিবারিক ডিএনএ’ তথ্যের ভিত্তিতে টিমোথি এল. উইলিয়ামস নামের এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছেন।

এই পদ্ধতিতে সন্দেহভাজনের আত্মীয়দের ডিএনএ থেকেও সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির তথ্য পাওয়া যায়।

উইলিয়ামসের বর্তমান বয়স ৫৬ বছর। তার মানে ঘটনার সময় বয়স ছিল ২০। তিনি রচেস্টারে ওয়েন্ডিদের বাড়ির পাশেই থাকতেন। তবে দুজন দুজনকে চিনতেন না।

ওয়েন্ডির মা গত শুক্রবার সংবাদ সম্মেলনে কাঁদতে কাঁদতে বলেন, ‘এই দিন দেখতে পাবো, কখনোই ভাবিনি। পুলিশদের ধন্যবাদ আশা না ছাড়ার জন্য। ’

ওয়েন্ডির বাবা অবশ্য মেয়ের খুনির বিচার দেখতে যেতে পারেননি। ২০১১ সালে তিনি মারা যান।

টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, উইলিয়ামসকে সেকেন্ড ডিগ্রি মার্ডারে অভিযুক্ত করা হয়েছে।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার