২০১৬ সালে তামিমার যাকে ডিভোর্স, ২০১৮ তে তিনিই স্বামী!

Img

তিনি একসময়ের তারকা ক্রিকেটার। তবে নাসির হোসেন বর্তমানে মাঠের ক্রিকেট নয়, বরং বাইরের কাজের জন্যই বেশি আলোচিত হচ্ছেন। সম্প্রতি তামিম সুলতানা তাম্মি নামের এক কেবিন ক্রুকে বিয়ে করেন এই অলরাউন্ডার। 

তবে বিপত্তি বাঁধে অন্য জায়গায়। তামিমাকে নিজের স্ত্রী হিসেবে দাবি করেন রাকিব হোসেন নামে এক ব্যক্তি। তার সঙ্গে আট বছরের সংসার ও তাদের একটি সন্তান আছে বলে দাবি করেন তিনি।

রাকিবকে ডিভোর্স না দিয়েই অবৈধভাবে নাসিরকে বিয়ে করেছেন বলেও দাবি ছিল তার। তবে বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারী) রাজধানীর বনানীতে সংবাদ মাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে নাসির জানিয়েছেন, বৈধভাবে ও অনেক মজা করেই বিয়ে করেছেন তিনি। সঙ্গে ডিভোর্স পেপারও দেখান। 

কিন্তু ডিভোর্স পেপার রিয়েল না ফেক; এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে চলছে তুমুল আলোচনা। বিষয়টি খটকা লাগে প্রবাসীর দিগন্তের এই প্রতিবেদকের কাছে। বলা যায় কেঁচো খুঁড়তে গিয়ে সাপের আবির্ভাব! তামিমার ২০১৮ সালের একটা পাসপোর্ট প্রবাসীর দিগন্তের হাতে আসার পর সন্দেহ আরও বাড়লো।

বুধবার সংবাদ সম্মেলনে নাসির ও তার স্ত্রী তামিমা যে ডিভোর্স পেপার দেখান, ওখানে লেখা ২০১৬ সালে রাকিবকে ডিভোর্স দিয়েছেন তামিমা। কিন্তু ২০১৮ সালের পাসপোর্টে আবার স্বামী হিসেবে রাকিবকেই দেখিয়েছেন। তবে কোনটা সত্য?

এ নিয়ে জানতে কয়েকবার নাসিরকে ফোন দেওয়া হলেও তার নাম্বার বন্ধ পাওয়া যায়।

এদিকে বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ জসিমের আদালতে মামলা দায়ের করেন নাসিরের স্ত্রীর সাবেক স্বামী মো. রাকিব হাসান। রাকিব নিজেই মামলার বিষয়টি প্রবাসীর দিগন্তকে নিশ্চিত করেছেন। রাকিবের পক্ষে আইনজীবী ছিলেন ইশরাত হাসান।

মামলার এজহারে উল্লেখ করা হয়, ২০১১ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি তাম্মি ও রাকিবের বিয়ে হয়। তাদের ৮ বছরের একটি মেয়েও রয়েছে। তাম্মি পেশায় একজন কেবিন ক্রু। চলতি বছরের ১৪ ফেব্রুয়ারি তাম্মি ও ক্রিকেটার নাসির হোসেনের বিয়ের ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে তা রাকিবের নজরে আসে। পরে পত্র-পত্রিকায় তিনি ঘটনার বিষয়ে সম্পূর্ণ জেনেছেন। 

মামলায় অভিযোগ করা হয়েছে, রাকিবের সঙ্গে বৈবাহিক সম্পর্ক চলমান অবস্থাতেই তাম্মি নাসিরকে বিয়ে করেছেন; যা ধর্মীয় এবং রাষ্ট্রীয় আইন অনুযায়ী সম্পূর্ণ অবৈধ। নাসির তাম্মিকে প্রলুব্ধ করে নিজের কাছে নিয়ে গিয়েছেন। 

গত ১৪ ফেব্রুয়ারি বিশ্ব ভালোবাসা দিবসে ঘটা করে বিয়ে করেন ক্রিকেটার নাসির ও তাম্মি। তাদের বিয়ের সপ্তাহ না পেরোতেই খবর আসে, অন্যের স্ত্রীকে বিয়ে করেছেন নাসির। এ জন্য থানায় একটি সাধারণ ডায়েরিও (জিডি) করেন নিজেকে তাম্মির প্রথম স্বামী হিসেবে দাবি করা রাকিব হাসান। 

এবার মামলা করলেন তিনি। তবে সেই মামলা চ্যালেঞ্জ জানিয়ে মুখ খুললেন নাসির। জানিয়ে রাখলেন আইনিভাবেই এর জবাব দেবেন তিনি।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার