স্পেনে ‘বিশ্ব শরণার্থী দিবস’ পালিত

Img

স্পেনের মাদ্রিদে অভিবাসীদের নিয়ে কাজ করা বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠনের উদ্যোগে ‘বিশ্ব শরণার্থী দিবস’ পালিত হয়েছে। শনিবার (১৯ জুন) বিকাল ৭ টায় স্থানীয় পুয়েন্তে দেল রেই সংলগ্ন নদী তীরে আয়োজিত অনুষ্ঠানমালায় বাংলাদেশসহ বিভিন্ন দেশের অভিবাসীরা অংশগ্রণ করেন।

বিশ্ব শরণার্থী দিবস এর আলোচনায় শরণার্থীদের মানবিক দৃষ্টিকোণ থেকে বিবেচনা করে তাদের মৌলিক অধিকার প্রদানের দাবি জানানো হয়। 

এসময় বক্তারা শরণার্থী প্রসঙ্গে আন্তর্জাতিক নেতৃবৃন্দের দায়বদ্ধতার অভাবকে উল্লেখ করে বলেন, এখনো বিশ্বে শরণার্থীদের ‘অবৈধ অভিবাসী’ আখ্যা দিয়ে তাদের উপর অমানবিকতা দেখানো হচ্ছে। স্পেনের সমুদ্রকূলবর্তী সীমানা শহর সেউতার নিকটবর্তী জায়গায় এখনো শতশত নারী শিশু শরণার্থী স্পেনের মূল ভূখণ্ডে প্রবেশের অপেক্ষায় রয়েছেন উল্লেখ করে বক্তারা তাদেরকে স্পেনে প্রবেশের অনুমতি প্রদানের দাবি জানান। ইউরোপে প্রবেশের আশায় সাগরে যাতে শরণার্থীদের শলিল সমাধি না হয়, সেজন্য আন্তর্জাতিক নেতাদের সহনশীল ও ভালোবাসার দৃষ্টিতে ভূমিকা রাখার অনুরোধ জানান বক্তারা।

আলোচনায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন রেড ইন্ডিয়ান লাভাপিয়েস সংগঠনের পেপা তররেস, ভালিয়েন্তে বাংলা সংগঠনের সভাপতি মো. ফজলে এলাহি, সেন্ত্র দে ডমেস্টিকো সংগঠনের রাফায়েল প্রমূখ। 

ভালিয়েন্তে বাংলা সভাপতি মো. ফজলে এলাহি তার বক্তব্যে বলেন, স্পেনে শরণার্থীসহ সকল অভিবাসীদের অধিকার নিশ্চিত করতে হবে। সকলের জন্য বিনা শর্তে নিয়মিত নাগরিকত্ব প্রদান, স্বাস্থ্য সেবা উন্মুক্ত করা এবং কোভিড টিকা নিয়মিতদের পাশাপাশি অনিয়মিত অভিবাসীদেরও যথাসময়ে প্রদান করতে হবে।

আলোচনা শেষে অনুষ্ঠিত উন্মুক্ত সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে বিভিন্ন দেশের অভিবাসীরা নিজ নিজ দেশের গান নাচ পরিবেশন করেন।

বিশ্ব শরণার্থী দিবসের অনুষ্ঠানে বাংলাদেশিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- স্পেন বাংলা প্রেসক্লাবের সদস্য কবির আল মাহমুদ, মো. সিদ্দিকুর রহমান, ভালিয়েন্তে বাংলার শাওন আহমদ, আলামীন পলোয়ান, জুলহাস উদ্দিন, ইসলাম উদ্দিন প্রমূখ।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার