মালয়েশিয়ায় ফাঁসি থেকে রক্ষা পেলো দুই বাংলাদেশি

Img
ছবি: প্রবাসীর দিগন্ত।

মালয়েশিয়ার পেনাং শহরে একজন রোহিঙ্গা হত্যার অভিযোগে গ্রেফতার দুই বাংলাদেশি ফাঁসি থেকে রক্ষা পেয়েছে। তিন বছর আগে সংগঠিত রোহিঙ্গা নাগরিক হত্যার অভিযোগে আটক হয় দুই জন বাংলাদেশি। 

বুধবার (৪ ডিসেম্বর) পেনাং হাইকোর্টের বিচারপতি দাতুক আক্তার তাহিররের আদালতে মামলায় আনিত অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় মো. দেলোয়ার হোসেন ও বরুন ধরকে বেকুশুর খালাশ প্রধান করেন।

আদালত সূত্রে প্রকাশ , ১৩ জনু ২০১৬ সালে রোহিঙ্গা নাগরিক মো. ইসহাক কবিরকে হত্যার অভিযোগে দুই জন বাংলাদেশিকে আটক করা হয়। হত্যাকাণ্ডের শিকার ইশরাক কবিরের ভাই দুই বাংলাদেশির বিরুদ্ধে হত্যার অভিযোগ আনেন। দীর্ঘ তিন বছর হত্যাকাণ্ডের পর্যালোচনা শেষে আদালতে হত্যাকাণ্ডের সংশ্লিষ্টতা প্রমাণ না পাওয়ায় ২ বাংলাদেশিকে খালাস প্রদান করেন। খালাশ প্রাপ্ত দুই জন বাংলাদেশির দেশের ঠিকানা এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত জানা যায়নি।

পূর্ববর্তী সংবাদ

সিরাজগঞ্জে মাটি খুঁড়তে গিয়ে মিলল পয়সার ৫ বস্তা

সিরাজগঞ্জের কাজীপুরে মুদি দোকানের মাটি খুঁড়তে গিয়ে পাঁচ বস্তা পয়সা পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার উপজেলার হরিণাথপুর সকালবাজারে দোকানের মাটি খুঁড়তে গিয়ে এ পয়সা পাওয়া গেছে। পয়সাগুলোর মধ্যে রয়েছে ১, ২ ও ৫ টাকার কয়েন।

বুধবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন কাজীপুর থানার ওসি একেএম লুৎফর রহমান।

সকালবাজারের দোকানিদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, দোকানির বাড়ি উপজেলার হরিণাথপুর সাহাপাড়ায়। মঙ্গলবার দোকানে খরিদদারের বসার মাচা ভেঙে গেলে নতুন করে মাচা তৈরির জন্য মাটি খুঁড়তে গেলেই পাওয়া যায় পয়সার খনি। একে একে বের হয় ১, ২ ও ৫ টাকার পাঁচ বস্তা পয়সা। পরে ওই মুদি দোকানি ভ্যানে করে পয়সাগুলো নিজ বাড়িতে নিয়ে যান।

দোকানি মৃদুল বলেন, দীর্ঘদিন দোকানদারি করতে গিয়ে নিচে পয়সা পড়ে পড়ে এতগুলো জমে গেছে।
কাজীপুর থানার ওসি একেএম লুৎফর রহমান জানান, পাঁচ বস্তা পয়সা উদ্ধারের কথা শুনেছি। এখনও লিখিত কোনো অভিযোগ পাইনি। ঘটনা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার