মদনে আহত ব্যবসায়ীর মৃত্যু, থানায় মামলা

Img

নেত্রকোণার মদনে আহত ব্যবসায়ী হেকিম মিয়া (৫৮) ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) রাতে মারা গেছেন।

এ ঘটনায় ৩৮ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা ৫০/৬০ জনকে আসামি করে নিহতের স্ত্রী মোছাঃ সাজু আক্তার বাদী হয়ে ওই রাতেই থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

এ ব্যাপারে নিহত হেকিম মিয়া পৌরসভার চকপাড়ার মৃত মহিম উদ্দিনের ছেলে ও শ্রমিক নেতা হাবিবুরের চাচা।

মামলায় উল্লেখ করা হয়, ২৩ ফেব্রুয়ারি (মঙ্গলবার) মদন-কেন্দুয়া সড়কের দেওয়ান বাজার রোডে শ্রমিক নেতা হাবিবুরের ভাই শরীফকে মদন উপজেলা সেচ্ছসেবক লীগের সভাপতি লিটন বাঙালীর লোকজন রামদা দিয়ে কুপিয়ে শরীরের বিভিন্ন অংশে রক্তাক্ত জখম করে।

এসময় দেওয়ান বাজারের বাঁশ ব্যবসায়ী হাবিবুরের চাচা হেকিম মিয়া কিল, ঘুষি, লাথিতে আহত হলে পরিবারের লোকজন মদন হাসপাতালে নিয়ে যায়। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক থাকায় তাকে ময়মনসিংহ হাসপাতালে প্রেরণ করলে সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ওই রাতে তার মৃত্যু হয়।

মদন থানার ওসি মাসুদুজ্জামান জানান, হেকিম মিয়া ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার মারা গেছেন। এ ঘটনায় তার স্ত্রী মোছাঃ সাজু আক্তার বাদী হয়ে মঙ্গলবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) রাতে ৩৮ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা ৫০/৬০ জনকে আসামি করে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে। লাশের ময়নাতদন্ত চলছে।

তবে এজাহারে উল্লেখ কিল, ঘুষি, লাথিতে তার মৃত্যুর বিষয়টি ময়মনসিংহ হাসপাতালের ময়না তদন্ত রিপোর্টে নিশ্চিত হওয়া যাবে।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার