করোনাভাইরাস সংক্রমণের ঝুঁকি এড়াতে ২৬ মার্চ থেকে সারাদেশে চলছে সাধারণ ছুটি। শুরু থেকেই ওষধ ও নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের দোকান ছাড়া সব দোকান বন্ধ থাকলেও গত ১০ মে থেকে সকল দোকান খোলার অনুমতি দেয় সরকার।

এরমধ্যে চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলার চাম্বল এলাকায় লোকজনের ওপর কঠোর হতে দেখা যায় স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মুজিবুল হক চেীধুরীকে। দোকনদার ও রাস্তাঘাটে বের হওয়া অনেককেই লাঠিপেটা করেন তিনি। অশ্লীল গালি দিয়ে দোকান ভাঙচুরসহ জিনিসপত্র তছনছও করেন।

এ ঘটনার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। যেখানে চেয়ারম্যান মুজিবুল হক চৌধুরীসহ কয়েকজন চৌকিদারকে লাঠি হাতে পেটাতে দেখা যায়।

সরকারি অনুমতি সাপেক্ষে দোকান খোলা রাখায় মারধর করায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন ভোক্তভোগীর। তারা ঘটনার সুষ্ঠু বিচার দাবি করেন।