বরিশালে যুবদলের বিক্ষোভ, পুলিশের বাঁধা

Img

বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি এবং বিদেশে সু-চিকিৎসার দাবিতে কেন্দ্রিয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় মহানগর যুবদলের উদ্যোগে সদর রোডের দলীয় কার্যালয়ের সামনে এক বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। সমাবেশ শেষে বিক্ষোভ মিছিল বের করলে তাদের বাঁধা দেয় পুলিশ।

যুবদলের কর্মসূচি উপলক্ষ্যে বিএনপি দলীয় কার্যালয়সহ আশপাশের এলাকায় মোতায়েন ছিল বিপুল সংখ্যক পুলিশ।

মহানগর যুবদলের সভাপতি অ্যাডভোকেট আক্তারুজ্জামান শামীমের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাজাহারুল ইসলাম, মাকসুদুর রহমান মাসুদ, কাইয়ুম রেজোয়ান সাগর এবং আসাদুজ্জামান মারুফ। সমাবেশ শেষে মহানগর যুবদল একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করলে অশ্বিনী কুমার হলের সামনে তাদের বাঁধা দেয় পুলিশ।    

এদিকে একই সময়ে জেলা (দক্ষিণ) যুবদলের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মামুন রেজা খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট এইচএম তসলিম উদ্দিন এবং সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট হাফিজ আহমেদ বাবলুসহ অন্যান্যরা। সমাবেশ শেষে তারাও বিক্ষোভ মিছিলের চেষ্টা করলে তাদের পুলিশ আটকে দেয়।

একই দাবিতে একই সময়ে সদর রোডের অশ্বিনী কুমার হলের সামনে পৃথক সমাবেশ করে উত্তর জেলা যুবদল। জেলা (উত্তর) যুবদলের আহ্বায়ক সারাউদ্দিন পিপলুর সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক সাইদুর রহমান সেন্টু এবং যুগ্ম আহ্বায়ক সাইফুল ইসলাম সুজন সহ অন্যান্যরা। সমাবেশ শেষে তারা একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করার চেস্টা করলে তাদেরও বাঁধা দেয় পুলিশ।

শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে পুলিশ বাঁধা দেয়ায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন মহানগর যুবদল সভাপতি আক্তারুজ্জামান শামীম এবং জেলা (দক্ষিন) যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক হাফিজ আহমেদ বাবলু।

এদিকে কোতয়ালী মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) লোকমান হোসেন বলেন, ব্যস্ততম সড়কে মিছিল করলে জনগণের চলাচলের সমস্যা হতে পারে। এছাড়া তাদের মিছিলের অনুমতি ছিল না। এ কারণে তাদের মিছিল করতে দেয়া হয়নি।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার