বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শের দল আওয়ামী লীগ: শাহীন চাকলাদার

Img

কেশবপুর (যশোর-৬) সংসদীয় আসনে উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থী ও যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার বলেছেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শের দল হল বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ। আর আদর্শের দল আওয়ামী লীগের প্রতীক হল নৌকা।

আগামী ১৪ জুলাই কেশবপুর (যশোর-৬) সংসদীয় আসনে উপ-নির্বাচনে বঙ্গবন্ধুর আদর্শের প্রতীক নৌকায় ঐক্যবদ্ধভাবে ভোট দিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে হবে। নৌকা বিজয়ী হলেই কেবল উন্নয়ন হয়। আর কেশবপুরের উন্নয়নের ধারাকে অব্যাহত রাখতে নৌকার কোন বিকল্প নেই। 

তিনি আরো বলেন, করোনাভাইরাস মোকাবেলায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সার্বক্ষণিক নিজে মনিটোরিং করছে। আওয়ামী লীগ সরকার করোনাভাইরাস মোকাবেলায় ক্ষতিগ্রস্থ দরিদ্র ও অসহায়দের মাঝে খাদ্যসামগ্রী, নগদ অর্থ, ভিভিন্ন প্রকার ভাতা, ১০ টাকা কেজি দরে চাউল-সহ বিভিন্ন প্রকার সাহায্য-সহযোগিতা প্রদান করেছে।

বিএনপি-জাতীয় পার্টি এই করোনাভাইরাস মোকাবেলায় জনগণের পাশে দাঁড়ায়নি। অথচ বিএনপি করোনাভাইরাসের উজুহাতে এই উপ-নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়ে ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে। আগামী ১৪ জুলাই যশোর-৬ কেশবপুর সংসদীয় আসনে উপ-নির্বাচনে সর্বোচ্চ ভোটারদের উপস্থিত নিশ্চিত করে বিএনপির ঐ ষড়যন্ত্রের উচিত জবাব দিতে হবে।

মঙ্গলবার (৭ জুলাই) উপজেলার ত্রিমোহিনী ইউনিয়নের বরণডালী বাজার ও  ত্রিমোহিনী ইউনিয়ন পরিষদ চত্ত্বর এবং সাতবাড়িয়া ইউনিয়নের সাতবাড়ীয়া বাজার, বেগমপুর বাজার ও কোমরপোল বাজারে পথসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।

উক্ত ২টি ইউনিয়নে ৫টি পথসাভায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আফজাল হোসেন, ঝিকরগাছা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মনিরুল ইসলাম, মণিরামপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নাজমা খানম, যশোর সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহিত কুমার নাথ।

কেশবপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এস এম রুহুল আমীন, সহ-সভাপতি সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান এইচ এম আমির হোসেন, সহ-সভাপতি এ্যাড, রফিকুল ইসলাম পিটু, সাধারণ সম্পাদক গাজী গোলাম মোস্তফা, অভয়নগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সরদার ওলিয়ার রহমান।

পৌর আওয়ামী লীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক এ্যাড. মিলন মিত্র, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ইউপি চেয়ারম্যান কাজী মুস্তাফিজুল ইসলাম মুক্ত, আইন বিষয়ক হুসাইন মোহাম্মদ ইসলাম, উপজেলা কৃষকলীগের সভাপতি সৈয়দ নাহিদ হাসান, ত্রিমোহিনী ইউপি চেয়ারম্যান এস এম আনিসুর রহমান, সাতবাড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান শামছুদ্দিন দফাদার, গৌরীঘোনা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক সাঈদুর রহমান সাঈদ, ত্রিমোহিনী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক বাবুল, যুগ্ম-আহ্বায়ক আব্দুল জব্বার, সাতবাড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক জি এম হোসেন, আবু বক্কার সিদ্দিক, মশিয়ার গাইন, মশিয়ার দফাদার, যুবলীগনেতা ওহেদুজ্জামান মিন্টু, রাজু, হাসান, আমজাদ, পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের আহ্বায়ক আবুল বাসার খান প্রমুখ।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার