প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী সমাপনী ফেনীতে অংশ নিচ্ছে ৩২ হাজার পরীক্ষার্থী

Img

সারাদেশের মত ফেনীতে আজ রবিবার থেকে প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা শুরু হচ্ছে। জেলার ৬২টি কেন্দ্রে ১ হাজার ৪২টি প্রতিষ্ঠান থেকে ৩১ হাজার ৯শ ৫০ জন পরীক্ষার্থী নিচ্ছে। এদের মধ্যে ১৪ হাজার ৭শ ১২ জন ছাত্র ও ১৭ হাজার ২শ ৩৮ জন ছাত্রী রয়েছে। গত বছরের চেয়ে পরীক্ষার্থী কমেছে ৯শ ৭৬ জন।

গত বছর পরীক্ষার্থী ছিল ৩২ হাজার ৯শ ২৬ জন। এদের মধ্যে ১৫ হাজার ৪শ ২৭ জন ছাত্র ও ১৭ হাজার ৪শ ৯৯ জন ছাত্রী রয়েছে। আগামী ২৪ নভেম্বর পরীক্ষা শেষ হবে।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস সূত্রে জানা যায়, ৯শ ১১টি বিদ্যালয়ের সমাপনী পরীক্ষায় ২৪ হাজার ১শ ৪০ পরীক্ষার্থী অংশ নিচ্ছে। গত বছর পরীক্ষার্থী ছিল ২৫ হাজার ১৬ জন।

ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় ১শ ৩১টি মাদরাসা থেকে ৭ হাজার ৮শ ১০ পরীক্ষার্থী অংশ নিচ্ছে। গত বছর ৭ হাজার ৯শ ১০ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে। ইংলিশ ভার্সনে ৬টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে সমাপনী পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছে ৭৪ জন। গত বছর ইংলিশ ভার্সনে পরীক্ষার্থী ছিল ৬৩ জন।

অফিস সূত্র আরো জানায়, ফেনী সদর উপজেলার ২২টি কেন্দ্রে ৩শ ১২টি বিদ্যালয়ের ৯ হাজার ৭২ পরীক্ষার্থীর মধ্যে ছাত্র ৪ হাজার ১শ ৪৭ জন ও ছাত্রী ৪ হাজার ৯শ ২৫ জন রয়েছে। গতবারের পরীক্ষার্থী ছিল ৯ হাজার ৩শ ৬৫ জন।
দাগনভূঞা উপজেলার ৯টি কেন্দ্রে ১শ ৬২টি বিদ্যালয়ে ৪ হাজার ৪শ ৪৭ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ১ হাজার ৯শ ৬৯ জন ছাত্র ও ২ হাজার ৪শ ৭৮ জন ছাত্রী রয়েছে। গতবার ছিল ৪ হাজার ৪শ ২৩ জন পরীক্ষার্থী।

সোনাগাজী উপজেলার ১১টি কেন্দ্রে ১শ ৬১টি বিদ্যালয়ের ৪ হাজার ১শ ৯১ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ১ হাজার ৮শ ২৭ জন ছাত্র ও ২ হাজার ৩শ ৬৪ জন ছাত্রী রয়েছে। গত বছর পরীক্ষার্থী ছিল ৪ হাজার ৫শ ৯১ জন।

ছাগলনাইয়া উপজেলার ৯টি কেন্দ্রে ১শ ২৭টি বিদ্যালয়ের ২ হাজার ৮শ ২২ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ১ হাজার ২শ ৯৫ জন ছাত্র ও ১ হাজার ৫শ ২৭ জন ছাত্রী রয়েছে। গত বছর ছিল ২ হাজার ৮শ ৯৩ জন পরীক্ষার্থী।

পরশুরাম উপজেলার ৫টি কেন্দ্রে ৬৮টি বিদ্যালয়ের ১ হাজার ৭শ ১৭ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ৭শ ৪১ জন ছাত্র ও ছাত্রী ৯শ ৭৬ জন রয়েছে। গত বছর পরীক্ষার্থী ছিল ১ হাজার ৭শ ৭৮ জন।

ফুলগাজী উপজেলার ৬টি কেন্দ্রে ৮১টি বিদ্যালয়ের ১ হাজার ৮শ ৯১ জন পরীক্ষার্থীর মধ্যে ৮শ ৬৬ জন ছাত্র ও ১ হাজার ২৫ জন ছাত্রী রয়েছে। গত বছর ছিল ১ হাজার ৯শ ৬৬ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে।

প্রাথমিক সমাপনী ইংরেজি ভার্সনের মোট পরীক্ষার্থী রয়েছে ৭৪ জন। এর মধ্যে ফেনী সদর উপজেলার ২টি কেন্দ্রের ৪টি বিদ্যালয়ের ৫৬ জন, সোনাগাজী উপজেলার ১ কেন্দ্রের ১টি বিদ্যালয়ের ১৫ জন ও ছাগলনাইয়া উপজেলার ১টি কেন্দ্রের ১টি বিদ্যালয়ের ৩ পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করবে।

অন্যদিকে ইবতেদায়ী সমাপনী পরীক্ষায় ৫৫টি কেন্দ্রে ১শ ৩৭টি মাদরাসার ৭ হাজার ৮শ ১০ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেবে। এর মধ্যে ছাত্র ৩ হাজার ৮শ ৬৭ ও ৩ হাজার ৯শ ৪৩ জন ছাত্রী রয়েছে।

ফেনী সদর উপজেলার ১৫টি কেন্দ্রে ২৯টি মাদরাসার ২ হাজার ৬শ ৪০ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেবে। এর মধ্যে ছাত্র ১ হাজার ২শ ৯৬ জন ও ছাত্রী ১ হাজার ৩শ ৮ জন রয়েছে। গত বছর পরীক্ষার্থী ছিল ২ হাজার ৬শ ৬৩ জন।
দাগনভূঞা উপজেলার ৯টি কেন্দ্রে ৩০টি মাদরাসার ১ হাজার ৫শ ৫৪ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেবে। এর মধ্যে ছাত্র ৭শ ২৯ জন ও ছাত্রী ৮শ ২৫ জন রয়েছে। গত বছর পরীক্ষার্থী ছিল ১ হাজার ৪শ ২৭ জন।

সোনাগাজী উপজেলার ১১টি কেন্দ্রে ২৩টি মাদরাসার ১ হাজার ৩শ ৯৬ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেবে। এর মধ্যে ছাত্র ৬শ ৭২ জন ও ছাত্রী ৭শ ২৪ জন রয়েছে। গত বছর ১ হাজার ৪শ ৬৮ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে।

ছাগলনাইয়া উপজেলার ৯টি কেন্দ্রে ২৭টি মাদরাসার ১ হাজার ২শ ২৮ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেবে। এর মধ্যে ছাত্র ৬শ ১৫ জন ও ছাত্রী ৬শ ১৩ জন রয়েছে। গত বছর পরীক্ষার্থী ছিল ১ হাজার ৩শ ৫২ জন।

পরশুরাম উপজেলার ৩টি কেন্দ্রে ১৩টি মাদরাসার ৫শ ৬৭ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেবে। এর মধ্যে ছাত্র ৩শ ২৮ জন ও ছাত্রী ২শ ৩৯ জন রয়েছে। গত বছর অংশগ্রহণ করে ৫শ ৫১ জন পরীক্ষার্থী।

ফুলগাজী উপজেলার ৬টি কেন্দ্রে ৯টি মাদরাসার ৪শ ৬১ জন পরীক্ষার্থী অংশ নেবে। এর মধ্যে ছাত্র ২শ ২৭ জন ও ছাত্রী ২শ ৩৪ জন রয়েছে। গত বছর ৪শ ৪৯ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো: নুরুল ইসলাম ফেনীর সময়কে জানান, প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করার জন্য সকল প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। জেলা প্রশাসন থেকে পরীক্ষা কেন্দ্রগুলো মনিটরিং করা হবে।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার