পাইকগাছায় বসতবাড়ি দখল করে ঘেরা-বেড়া দেয়ার সময় বাঁধা দিলে প্রতিপক্ষের লাঠির আঘাতে দুই জন আহত হয়েছেন। আহতরা পাইকগাছা হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। 

ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার চাঁদখালী ইউপির কালুয়া গ্রামে। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এ ঘটনায় থানায় অভিযোগ দাখিল হয়েছে। 
 
অভিযোগে জানা যায়, উপজেলার কালুয়া গ্রামে শহিদুল ইসলাম সরদারের সাথে প্রতিবেশী মসলেম সরদারের জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছে। এ নিয়ে কয়েক দফা চেয়ারম্যান-মেম্বরদের নিকট শালিসী বৈঠক হয়। 

শহিদুল ইসলাম সরদার জানান, সর্বশেষ গত শনিবার দুপুর ১টার দিকে মসলেম সরদার, মুরাদ সরদার, ইকবাল হোসেন মুকুল, সাকিব সরদার, সেলিম সরদার গংরা জোর করে দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে বসত বাড়ী দখলের চেষ্টা করলে তাতে বাঁধা দিলে শহিদুল সরদার ও আয়ফুল খাতুনকে বেধড়ক পেটাতে থাকে। 

এ সময় তাদের লাঠির আঘাতে আয়ফুল বেগমের মাথা ফেটে যায় এবং শহিদুল ইসলামকে শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করে ফোলা জখম করে। আহতরা বর্তমানে পাইকগাছা হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। 

এ ঘটনায় পাইকগাছা থানায় শহিদুল সরদার বাদী হয়ে সাধারণ ডায়েরি করেছেন। যার নং- ১৪৮০।