পাইকগাছায় ছাত্রলীগ কর্মী প্রান্ত হত্যা মামলা দায়ের

Img

পাইকগাছায় অবশেষে ছাত্রলীগ কর্মী কলেজ ছাত্র প্রান্ত ঘোষ (২৪) হত্যা মামলা দায়ের হয়েছে। মৃত্যুর ২ দিন পর শুক্রবার রাতে নিহতের ভাই অনুপ ঘোষ বাদী হয়ে ৫ জনকে আসামি করে থানায় এ হত্যা মামলাটি  করেছেন, যার নং ১২। তদন্তের স্বার্থে এ মুহুর্তে পুলিশ আসামীদের নাম ঠিকানা প্রকাশ করতে রাজি হয়নি তবে আসামিদের গ্রেফতার অভিযান ও তাদের গতিবিধি সম্পর্কে নজরদারী বাড়ানোর কথা বলেছেন। 

এ সম্পর্কে ওসি মোঃ এজাজ শফী জানান, এ হত্যা মামলায় এলাকার নিরাপরাধ কোন মানুষের হয়রানী হবার সুযোগ নেই এবং এর রহস্য উদঘাটনে তিনি সংশ্লিষ্টদের সহয়তা চেয়েছেন। 

এদিকে থানা হেফাজতে আটক স্কুলছাত্রীর আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্ধি শেষে শনিবার দুপুরে ওই ছাত্রী ও তার বাবা গড়ইখালীর  দিদারুল মোল্লাকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে বলে ইন্সপেক্টর তদন্ত মোঃ আশরাফুল আলম এ প্রতিনিধিকে জানিয়েছেন।

উল্লেখ্য একটি মেয়েলি ঘটনার জের ধরে গত ৭ আক্টোবর বিকেলে গড়ইখালী বাজারে অনুষ্ঠিতব্য উপ-নির্বাচনে নৌকার নির্বাচনী পথ সভা শেষে রাতে মটর সাইকেলে করে বাড়ীতে ফিরছিলেন। ফেরার পথে বেশ ক'জন যুবক পিছন থেকে মোটর সাইকেল চোর গুজব তুলে তাকে ধাওয়া করে। এক পর্যায়ে  লস্কর ইউপির উত্তর খড়িয়া গ্রামে সুকুমার মন্ডল বাড়ীর কছে রাস্তায় রাখা বালিতে ও ব্যারিকেটে বাধা পেয়ে সটকে পড়ে আঘাত পান। এরই মধ্যে পিছন থেকে তাড়া করা যুবকরা প্রান্তকে বেধড়ক পিটিয়ে মারাত্মকভাবে আহত করে। 

জানাগেছে, প্রথমে এ ঘটনা মটরসাইকেল দুঘর্টনা বলে প্রচার দেওয়ার চেষ্টা করা হয়। ক্রামান্বয়ে শারিরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে প্রান্তকে খুলনার একটি বে-সরকারী হাসপাতালে ভর্তি করা হয় এবং এখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১৪ অক্টোবর তার অকাল মৃত্যু ঘটে। হতভাগ্য কলেজ ছাত্র গদাইপুর ইউপির গোপালপুর গ্রামের ভড়ু ঘোষের ছোট ছেলে।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার