মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে দ্বিতীয় ও শেষ টি-টোয়েন্টিতে জিম্বাবুয়েকে নয় উইকেটে হারিয়েছে বাংলাদেশ।

দাপুটে জয়ে টি-টোয়েন্টি সিরিজেও জিম্বাবুয়েকে হোয়াইটওয়াশ করলো বাংলাদেশ। শেষ ম্যাচে অতিথিদের নয় উইকেটে হারিয়েছে টাইগাররা। প্রথমে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৭ উইকেটে ১১৯ রান তোলে সফরকারীরা। জাবাবে নয় উইকেট হাতে রেখেই ম্যাচ জিতে নেয় মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের দল।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টানা দাপট দেখিয়েই চলেছে বাংলাদেশ। শেষ টি-টোয়েন্টিতে তাই সাইডবেঞ্চকে বাজিয়ে দেখার চেষ্টা টাইগার টিম ম্যানেজমেন্টের। তামিমের জায়গায় নাইম শেখ, ঘাসের উইকেটে বাড়তি পেসার হিসেবে অভিষিক্ত হাসান মাহমুদ। টস জিতে ফিল্ডিংয়ে বাংলাদেশ।

কামুনহুকামওয়েকে ১০ রানে ফিরিয়ে ডেডলকটা ভাঙলেন আল আমিন। ক্রেগ আরভিনকে সাথে নিয়ে লড়াইয়ের আভাস দিচ্ছিলেন ব্র্যান্ডন টেইলর। ওদের ৫৭ রানের পার্টনারশিপ আফিফ হোসেন। আরভিনকে ২৯ রানে ফেরান তিনি। টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারে নিজের প্রথম উইকেট হিসেবে শন উইলিয়ামসকে আউট করেন মাহেদী হাসান। সহজ ক্যাচটা সৌম্য না ছাড়লে সিকান্দার রাজার উইকেটটাও যেতো তার পকেটেই।

রাজাকে শেষ পর্যন্ত ১২ রানে তুলে নেন সাইফুদ্দিন। ২০ ওভার শেষে জিম্বাবুয়ের স্কোরবোর্ডে জমা ১১৯।

জবাবে লিটন-নাঈম ওপেনিং জোটের মারকুটে শুরু। ৭৭ রানের পার্টনারশিপটা ভাঙে নাঈম শেখ ৩৩ রানে ফেরায়। তবে সৌম্যকে সাথে নিয়ে বাকি কাজটা ঠিকঠাকভাবেই করেছে লিটন দাশ। ক্যারিয়ারের চতুর্থ ফিফটি তুলে নট-আউট থেকেছেন ৬০ রানে। আরেক অপরাজিত ব্যাটসম্যান সৌম্য ব্যাটে আসে ২০ রান।