টাঙ্গাইলে ৮৮ কেজি গাঁজা ও প্রাইভেটকারসহ তিন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার

Img

টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলা থেকে ৮৮কেজি গাঁজা, একটি প্রাইভেটকারসহ তিনজন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-১২। সোমবার সকালে টাঙ্গাইল র‌্যাব-১২ সিপিসি-৩ এর কোম্পানী কমান্ডার মেজর মোহাম্মদ রবিউল ইসলাম এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমরা জানতে পারি ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা একটি প্রাভেটকার যোগে একদল মাদক ব্যবসায়ী বিপুল পরিমান গাঁজা বহন করে কুমিল্লা জেলায় নিয়ে যাচ্ছে।

পরবর্তীতে র‌্যাবের একটি আভিযানিক দল প্রাইভেট কারটিকে ধাওয়া করে। পরে টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার নারান্দিয়া ইউনিয়নের বাঁশজানা জামে মসজিদের সামনে থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এসময় তাদের কাছ থেকে ৮৮কেজি গাঁজা, একটি প্রাইভেট করা ও নগদ অর্থ উদ্ধার করা হয়। পরে আসামীরা জানায়, তারা টাঙ্গাইল জেলাসহ দেশের বিভিন্ন জেলায় মাদক ব্যবসায়ী ও মাদকসেবীদের নিকট তাদের চাহিদা অনুযায়ী গাঁজা সরবরাহ করে থাকে। এ বিষয়ে মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনে একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

পূর্ববর্তী সংবাদ

যারা টাকা, গম, চাল মেরে খায় সে যদি আমার ছেলেও হয়, তাদের ভোট দেবেন না

রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ বলেছেন, প্রতিটি রাজনৈতিক দলেরই উচিত ভালো লোককে মনোনয়ন দেওয়া। যারা মানুষের কল্যাণে কাজ করবে। তাহলেই দেশের উন্নতি হবে। সোমবার (২৪ সেপ্টেম্বর) বিকেলে কিশোরগঞ্জের অষ্টগ্রামে তাকে দেওয়া গণসংবর্ধনায় রাখা বক্তব্যে রাষ্ট্রপতি এ কথা বলেন। আর জনগণের প্রতি সৎ ও চরিত্রবান প্রার্থীকে ভোট দেওয়ার আহ্বান জানিয়ে রাষ্ট্রপতি আরও বলেন, যারা টিআর, কাবিখার টাকা, গম, চাল মেরে খায়, সে যদি আমার ছেলেও হয়, তাদের ভোট দেবেন না। কোথায় ভোট দিলে আপনাদের উন্নতি হবে, কল্যাণ হবে, সেটা বুঝে-শুনেই ভোট দেবেন। যাদের কথা ও কাজে মিল রয়েছে, তাদের ভোট দেবেন।

জনপ্রতিনিধিদেরও প্রতি জনগণের সঙ্গে ভালো ব্যবহার করার আহ্বান জানিয়ে তিনি বলেন, আমি স্বপ্ন দেখি উন্নত ভবিষ্যতের। এক সময় সমস্ত হাওর এলাকায় রাস্তাঘাট হবে। কৃষক নির্বিঘ্নে তাদের উৎপাদিত ফসল ঘরে তুলতে পারবে। হাওরে ফ্লাইওভার হবে। ফ্লাইওভার দিয়ে হাওরের মানুষ জেলা শহর কিশোরগঞ্জ ও ঢাকার সঙ্গে যোগাযোগ করবে। এটি আমার ঘুমিয়ে দেখা স্বপ্ন বা দিবা স্বপ্ন নয়। এ স্বপ্ন বাস্তবায়িত হবে একদিন। হয়তো সেদিন আমি থাকবো না। কিন্তু হাওরের মানুষ সে সুফল একদিন ভোগ করবে।

জেলা পরিষদের সদস্য মুক্তিযোদ্ধা ফজলুল হক হায়দারির সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন কিশোরগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য ও রাষ্ট্রপতির ছেলে রেজওয়ান আহাম্মদ তৌফিক, কিশোরগঞ্জ-৫ আসনের সংসদ সদস্য আফজাল হোসেন, কিশোরগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মো. সোহরাব উদ্দিন, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট জিল্লুর রহমান প্রমুখ।

এর আগে রাষ্ট্রপতি অষ্টগ্রামের সাতটি উন্নয়ন কাজের ফলক উন্মোচন করেন। সন্ধ্যা ৭টায় রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ অডিটরিয়ামে স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সঙ্গে মতবিনিময়ে অংশ নেন তিনি। পাঁচদিনের সফরের প্রথম দিন তিনি অষ্টগ্রামে এলেন। মঙ্গলবার (২৫ সেপ্টেম্বর) তিনি ইটনায় যাবেন। -বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার