কিশোরগঞ্জ জেলার কটিয়াদীতে খোকন মিয়া (৩০) নামে একজনের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। 
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, মঙ্গলবার ভোররাতে কে বা কারা খোকনকে তার বাড়ির অদূরে নির্জন স্থানে মাথায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে ফেলে রেখে যায়। সকালে এলাকাবাসী তার লাশ পড়ে থাকতে দেখে থানায খবর দিলে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে। খোকন উপজেলার আচমিতা জাল্লাবাদ গ্রামের রাশিদ মিয়ার ছেলে।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মাহাবুবুর রহমান বাচ্চু জানান, নিহত খোকন গরু চুরি, ডাকাতি, খুন, ছিনতাইসহ নানা অপকর্মের সাথে জড়িত ছিল। চক্রের ভাগবাটোয়ারা নিয়ে এ ঘটনা ঘটে থাকতে পারে।

কটিয়াদী মডেল থানার ওসি এম,এ জলিল ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নিহত ডাকাতের বিরুদ্ধে হত্যা ও ডাকাতির মামলা রয়েছে। কে বা কারা খুনের সাথে জড়িত অনুসন্ধান করা হচ্ছে। লাশ উদ্ধার করে দুপুরে ময়নাতদন্তের জন্য কিশোরগঞ্জ ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।