কানাডায় সড়ক দুর্ঘটনায় তিন বাংলাদেশি নিহত

Img

কানাডায় সড়ক দুর্ঘটনায় তিন বাংলাদেশি শিক্ষার্থী নিহত হয়েছেন। স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) ভোর সাড়ে ৬টার ও বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যার দিকে দেশটির ম্যানিটোবায় দুটি গাড়ির মুখোমুখি সংঘর্ষে তারা নিহত হন।

উইনিপেগ শহর থেকে ১১৫ কিলোমিটার দূরে আরবর্গ শহরের উত্তরে এ দুর্ঘটনা ঘটে। কানাডায় থাকা একজন বাংলাদেশী কূটনীতিক বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

নিহতরা হলেন- আদিত্য নোমান, আরানুর আসাদ চৌধুরী ও রসুল বাঁধন। তাদের বয়স ২৩ থেকে ২৫ বছরের মধ্যে। তিনজনই ম্যানিটোবা বিশ্ববিদ্যালয়ের শেষ বর্ষের ছাত্র ছিলেন।

এ বিষয়ে বাংলাদেশি কমিউনিটির আবদুল বাতেন জানান, নিহত ৩ ছাত্র ম্যানিটোবা শহরে নর্দার্ন লাইফের অরোরার আলোকচ্ছটা দেখতে গিয়েছিলেন। ফেরার পথে এ দুর্ঘটনার কবলে পড়েন তারা। কমিউনিটিতে তারা জনসেবামূলক কর্মকাণ্ডে ব্যাপক পরিচিত ছিলেন।

পূর্ববর্তী সংবাদ

নারীরা কৌশলে যে মিথ্যাগুলোর আশ্রয় নেন

নারীদের মনস্তত্ত্ব বুঝতে গিয়ে বহু মনীষীও হিমশিম খেয়েছেন। আসলে তারা কি চান, সে বিষয়টা কোন কোন পুরুষ হয়তো সারা জীবনেও বুঝে উঠতে পারেন না। নারীদেরও অবশ্য বহু অভিযোগ রয়েছে পুরুষদের বিরুদ্ধে। আবার কিছু নারীরা পরিস্থিতি বুঝে তা সামাল দেওয়ার জন্য কৌশলে মিথ্যার আশ্রয় নেন। তারা যেটা মুখে বলেন, মনে হয়তো থাকে তার বিপরীত কিছু। এখানে সে ধরনের কয়েকটি মিথ্যা তুলে ধরা হলো:

১) আমি তোমার ফোন কলের জন্য অপেক্ষা করছিলাম না।

২) আমি সত্যি তোমাকে পছন্দ করি। কিন্তু, এটা জানি না কখন তা ভালবাসায় রূপ নেবে।

৩) আমাদের একসঙ্গে বিল পরিশোধ করা উচিত। সবসময় তুমিই কেন সে ভার বহন করবে?

৪) আমার পছন্দের পুরুষটির মাথায় টাক থাকলে বা সে সুদর্শন না হলেও, তাতে কোন অসুবিধা নেই। অন্তত, সে যদি ধনী হয়, সেক্ষেত্রে আমরা একটি সুরক্ষিত জীবনতো পাবো।

৫) আমি কখনোই তোমার স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ করবো না। কথায় কথায় খুঁত ধরবো না। তুমি যেমনটা চাইবে, তেমনটাই হবে।

৬) তুমিই একমাত্র পুরুষ যাকে আমি সারাটি জীবন ধরে চেয়েছি।

৭) তোমার কোন ভুল নেই। আমার মনে হয়, ভুলটা আমারই।

৮) আমার শ্বশুর বাড়ির লোকজনের সঙ্গে আমি সবচেয়ে বেশি স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। তারা তো আমারই পরিবার।

প্রতিক্রিয়া মন্তব্য শেয়ার