প্রচ্ছদ | প্রবাস | বঙ্গবন্ধুর ভাষণের স্বীকৃতিতে স্পেনে আনন্দ শোভাযাত্রা

বঙ্গবন্ধুর ভাষণের স্বীকৃতিতে স্পেনে আনন্দ শোভাযাত্রা

image

স্পেনে জাতিসংঘের শিক্ষা-সংস্কৃতি ও বিজ্ঞান বিষয়ক সংস্থা ইউনেস্কো  কর্তৃক পৃথিবীর গুরুত্বপূর্ণ দালিলিক ঐতিহ্য হিসেবে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১৯৭১ সালের ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণের স্বীকৃতি অর্জন উদ্‌যাপন করা হয়েছে। দেশটির রাজধানী মাদ্রিদে  বাংলাদেশ দূতাবাসে গতকাল  মঙ্গলবার (৫ ডিসেম্বর) প্রবাসী বাংলাদেশ কমিউনিটিকে সঙ্গে নিয়ে এই স্বীকৃতি যথাযথ মর্যাদা ও আনন্দঘন পরিবেশে উদ্‌যাপন করা হয়। অনুষ্ঠানে মাদ্রিদে  বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশি ও দূতাবাসের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা  উপস্থিত ছিলেন।

এই স্বীকৃতি উপলক্ষেআলোচনা সভায়  মিনিষ্টার এন্ড হেড অব চ্যানচারী হারুন আল রশীদের সঞ্চালনায় দিবসটি স্মরনে জাতির উদ্দেশ্যে দেয়া মহামান্য রাষ্টপতি ও মাননীয় প্রধান মন্ত্রীর বানী পাঠ করে শুনান কমার্শিয়াল কাউন্সেলর মোহাম্মদ নাভিদ শফিউল্লাহ ও প্রথম সচিব লেবার উইং শরীফুল ইসলাম।এরপর বঙ্গবন্ধুর ১৯৭১ সালের ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণটির ভিডিও প্রজেক্টরের মাধ্যমে  প্রদর্শন ও আনন্দ র‍্যালী বের করা হয়।

অনুষ্টানে  প্রধান অতিথি স্পেনে  নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত হাসান মাহমুদ খন্দকার  বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধে ঐতিহাসিক ৭ মার্চের ভাষণকে মহাকাব্য হিসেবে অভিহিত করে এর তাৎপর্য তুলে ধরেন।

এসময় তিনি  বলেন,জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষন, ইউনেস্কো কর্তৃক বিশ্ব প্রামান্য ঐতিহ্য হিসেবে স্বীকৃতি লাভ করায় দিবসটি বাঙালী জাতির জন্য অত্যন্ত গর্বের ও গৌরবের।বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ঐতিহাসিক ভাষনটি বাংলাদেশের গন্ডি পেরিয়ে বিশ্ব দরবারে স্তান পেয়েছে। যা নতুন প্রজন্ম তথা বিশ্বের নিপিড়িত নির্যাতিত স্বাধীনতাকামী মানুষদের অধিকার আদায়ে উদ্বুদ্ধ  করায় অনন্য ভুমিকা রাখবে।

 তিনি আরো বলেন, ইউনেসকো কর্তৃক প্রদত্ত এ স্বীকৃতি বিশ্ব দরবাররে আমাদের গোটা জাতিকে এক নতুন উচ্চতায় আসীন করেছে। এ স্বীকৃতিকে জাতীয় গৌরব ও বাঙালি জাতির এক নতুন পরিচয় হিসেবে আখ্যায়িত করে তিনি প্রবাসী বাংলাদেশিদের বাংলাদেশের চলমান উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় আরও সক্রিয়ভাবে অবদান রাখার আহ্বান জানান।

সম্প্রতি ঢাকায় অনুষ্ঠিত দূত সম্মেলনের সূত্র ধরে রাষ্ট্রদূত হাসান মাহমুদ খন্দকার উপস্থিত বাংলাদেশ কমিউনিটিকে অবহিত করে বলেন  আন্তর্জাতিক অঙ্গনে বাংলাদেশের উজ্জ্বল অবস্থান ও অর্জিত সুনামের জন্য প্রধানমন্ত্রী পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও বাংলাদেশ দূতাবাসসমূহের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন।অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন স্পেন বাংলা প্রেস ক্লাবের উপদেষ্টা কবি  মিনহাজুল আলম মামুন,সভাপতি সাহাদুল সোহেদ , দেশ কন্ঠ এর সম্পাদক সাংবাদিক এ,কে,এম জহিরুল ইসলাম,কবির আল মাহমুদ,সাইফুল আমিন,এইচ এম ইকবাল,আওয়ামীলীগ নেতা রিজভী আলম,এম আই আমিন,আইনজীবী তারেক হোসেন,মোহাম্মদ হাসান প্রমূখ,

পরে ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণটি ইউনেসকো কর্তৃক স্বীকৃতি লাভ উপলক্ষে হিমেল শীতকে উপেক্ষা করে প্রবাসী বাংলাদেশি ও দূতাবাসের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের আনন্দমুখর অংশগ্রহণে একটি আনন্দ শোভাযাত্রার মাধমে সমাপ্তি হয়। 

শেয়ার করুন: Facebook Twitter Google LinkedIn Pinterest Print Email

মন্তব্য ফিড সাবস্ক্রাইব করুন মন্তব্যসমূহ (0 মন্তব্য প্রকাশ হয়েছে):

মোট: | প্রদর্শন:

মন্তব্য প্রকাশ করুন comment

  • Bold
  • Italic
  • Underline
  • Quote
  • email Email to a friend
  • print প্রিন্ট সংস্করণ
  • Plain text সরল পাঠ্য
এই নিবন্ধটি জন্য কোন ট্যাগ নেই
এই সংবাদটি মূল্যায়ন করুন
5.00